Earn money by a YouTube Channel, ইউটুব চ্যানেল তৈরী করে টাকা কামন, Complete Roadmap

earn-from-youtube

Earn money by a YouTube Channel, ইউটুব চ্যানেল তৈরী করে টাকা কামন, Complete Roadmap

YouTube থেকে টাকা ইনকাম এর ব্যাপারে জানে না এরকম লোক না পাওয়াই স্বাভাবিক। বর্তমান সময় আপনার যদি জানা না থাকে তাহলে জানিয়ে দিই প্রত্যেক 10 জনের একজন YouTuber এবং তারা সকলেই এগিয়ে যাওয়ার জন্য আপ্রাণ চেষ্টা করে চলেছে। আপনি ইউটিউব থেকে প্রচুর পরিমাণ টাকা কমাতে পারেন। এ বিষয়ে বেশি ব্যাখ্যা দিয়ে আপনাকে বিরক্ত করবো না শুধু প্রধান জিনিসগুলো জানিয়ে দেবো।


আপনার যদি প্রথম থেকেই YouTube থেকে থাকে তাহলে কোন অসুবিধা নেই। কিন্তু আপনি যদি ভাবছেন YouTube শুরু করবেন তাহলে, কিছু জিনিস জেনে রাখুন।

1. বর্তমান সময়ে YouTube এ প্রচুর প্রতিদ্বন্দ্বী রয়েছে যেকোনো নিশ বা যেকোনো টপিক এর উপর, সেটা education হোক বা comedy হোক বা gaming ইত্যাদি।  তাই আপনি যদি এখন শুরু করছেন প্রথম থেকে আপনাকে প্রফেশনাল ভাবে শুরু করতে হবে।

2. YouTube  শুরু করার আগে আপনি যেই টপিকের ওপর YouTube ভিডিও ছাড়বেন বলে ঠিক করেছেন, সেই বিষয়ে কমকরে দশটি ভিডিও বানিয়ে ফেলুন।

3. আর এই যে দশটি ভিডিও আপনি বানাবেন তা একদম নিখুঁতভাবে এবং প্রফেশনালভাবে বানানোর চেষ্টা করুন। প্রয়োজনে ভালো ভালো এডিটিং সফটওয়্যার ডাউনলোড করুন। তবে প্রফেশনাল মানেই এক লাখ টাকা দামি ক্যামেরা বা মাইক কিনতে আমি বলছি না। video layout, content ও designing এ মনোনিবেশ করুন।

4. যেইদিন ইউটিউব চ্যানেল খুলবেন সেইদিনই দশটা ভিডিও একসঙ্গে আপলোড দিন।

5. এবার ঠিক করে নিন সপ্তাহের যেকোনো তিনটে দিন ভিডিও আপলোডের জন্য।

6. যে তিন দিন ঠিক করবেন সেই তিন দিন একই সময়ে, প্রয়োজনে Schedule করে ভিডিও আপলোড দিতে শুরু করুন।

7. যে কোন ক্রমে সপ্তাহে তিনটে ভিডিও দিতেই হবে।

8. প্রফেশনাল ভাবে শুরু থেকেই ফেসবুক এবং অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়াতে একটিভ থাকুন। প্রত্যেক সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রত্যেকদিন একই সময় অন্তত দুটো পোস্ট দিতেই হবে।

9. নিজের বানানো ভিডিও বেশি বেশি করে বেশি বেশি জায়গায় শেয়ার করতে থাকুন। তবে গেমিং ভিডিও বানিয়ে পড়াশোনার গ্রুপে শেয়ার করবেন না কারণ ওটা বৃথা যাবে।

10. যদি আপনি টাকা ইনভেস্ট করতে রাজি থাকেন তাহলে ফেসবুক/YouTube ক্যাম্পেইন চালান।

11. YouTube এ প্রতিদিন অন্তত 2টি করে শর্ট ভিডিও আপলোড করুন।


উপরিউক্ত সব বিষয়গুলো লক্ষ্য রাখলে এবং মোটামুটি ধারাবাহিক  content দিলে 1-2 মাসের মধ্যেই 4000h watch time আর 1000 subscriber পূরণ হয়ে যাবে তারপর আপনি টাকা কমাতে পারেন।


ইউটিউব থেকে প্রচুর ভাবে টাকা কামানো যায় যথা-

1. Adsence

2.Channel এ premium subscriber হিসেবে join করিয়ে।

3. Affiliate marketing করে।

4. কোনো কিছু Promote করে।

5. YouTube থেকে আপনার কোনো website বা blogging channel এ traffic redirect করে।

6. YouTube এ সাধারণ ভিউ পড়লে YouTube থেকেও per click হিসেবে নির্দিষ্ট একটি টাকা পাওয়া যায়।


মূলত আপনি যদি এই 6টি পদ্ধতি ও ব্যবহার করেন এবং আনুমানিক প্রত্যেকটা পদ্ধতি থেকে আপনি যদি মাসে 1000 টাকা করে কামান। তাহলেও আপনি শুরুতেই মাসে 6000 টাকা কামিয়ে নিতে পারবেন। যেটা মোটেও কম নয়।


নতুন YouTube শুরু করার জন্য কিছু Tips:

Tip 1: Have a Clear VisionTip 

Tip 2: Create an Attention-Grabbing Description

Tip 3: Optimize Everything

Tip 4: Commit to A Schedule

Tip 5: Vary but Focused

Tip 6: Understand Your Audience

Tip 7: Know Your Competition

Tip 8: Learn from Your Favorite Channels

Tip 9: Create An Interesting Thumbnail

 

পরিশেষে, আপনার ব্যবসার জন্য আপনার নিজস্ব YouTube চ্যানেল তৈরি করা আপনার নাগাল প্রসারিত করার এবং কিছু অতিরিক্ত আয় করার একটি চমৎকার উপায়। আপনাকে যে জিনিসটি মনে রাখতে হবে তা হল আপনি যখন আপনার চ্যানেল তৈরি করবেন তখন আপনাকে সঠিক কৌশল অবলম্বন করতে হবে।

একবার আপনি চলে গেলে, আপনাকে ধারাবাহিক থাকতে হবে এবং আপনার পরিকল্পনা অনুসরণ করতে হবে যাতে আপনার শ্রোতারা দীর্ঘ সময়ের জন্য আপনার সাথে লেগে থাকে। নিশ্চিত করুন যে আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানেল প্রচার করতে এবং আপনার লক্ষ্য দর্শকদের সাথে নিয়মিত জড়িত হওয়ার উপায় হিসাবে সোশ্যাল মিডিয়ার শক্তি ব্যবহার করছেন৷ নতুন ইউটিউবারদের মধ্যে অনেক সমস্যা আছে, কিন্তু আপনি যদি এই বইয়ের পরামর্শ অনুসরণ করেন, তাহলে আপনি সেগুলি এড়াতে আরও ভালভাবে সজ্জিত হবেন। কখনই ভুলে যাবেন না যে আপনাকে অবশ্যই আপনার দর্শকদের আয়ের আগে রাখতে হবে।

আপনার YouTube চ্যানেলের জন্য সঠিক কৌশল থাকা আপনাকে সর্বদা দরকারী ভিডিও সামগ্রী এবং লাভের মধ্যে ভারসাম্য খুঁজে পেতে পরিচালিত করবে। এখন যেহেতু আপনার YouTube চ্যানেল সফল করার জন্য আপনাকে মূল কৌশলগুলি প্রদান করা হয়েছে, এখন আপনার কাছে লক্ষ লক্ষ দর্শকদের কাছে পৌঁছানোর এবং আপনার ব্যবসার সামগ্রিক লাভ বাড়ানোর জন্য প্রয়োজনীয় সমস্ত সরঞ্জাম রয়েছে৷ যতক্ষণ আপনি গ্রাহকদের একটি অনুগত এবং নিযুক্ত গ্রুপ বজায় রাখতে পারেন এবং তাদের পছন্দের প্রাসঙ্গিক ভিডিও আপলোড করা চালিয়ে যেতে পারেন, আপনার একটি সফল YouTube চ্যানেলের নিশ্চয়তা রয়েছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

নবীনতর পূর্বতন

نموذج الاتصال